মেনু নির্বাচন করুন
পাতা

এক নজরে

ভূমিকা
 
কাহারোল উপজেলা দিনাজপুর জেলা সদর থেকে উত্তর দিকে প্রায় ২৫ কিঃমি দুরে অবস্থিত।এই উপজেলার অবস্থান ২৫০৪৪র্  থেকে ২৫০৫৩র্  উত্তর অক্ষাংশ এবং ৮৮০৩র্০ থেকে ৮৯০৪র্৩ পূর্ব দ্রাঘিমাংশ।উপজেলার মধ্যভাগ দিয়ে পূণর্ভবা  ও ঢেপা নদী বয়ে গেছে। কাহারোল উপজেলার উত্তরে বীরগঞ্জ উপজেলা,দক্ষিণে দিনাজপুর সদর ও বিরল উপজেলা,পূর্বে খানসামা ও দিনাজপুর সদর এবং পশ্চিমে বচাগঞ্জ উপজেলা। কাহারোল উপজেলার মোট আয়তন ২০,৫৫৫ হেঃ। মোট আবাদী জমি ১৮২২৩  হেঃ। এই উপজেলার শতকরা ৮৫ ভাগ মানুষ  কৃষির সাথে প্রত্যক্ষ ও প্ররোক্ষ ভাবে জড়িত। তাই কাহারোল উপজেলা কৃষির জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ন। এই উপজেলায় আবাদযোগ্য উচু জমি ৪১৯২ হেঃ, মাঝারী উচু ১৩০০৪ হেঃ, মাঝারী নিচু ১০২৭হেঃ। প্রধান শস্য বিন্যাস ধান ভিত্তিক। উপজেলার বেশির ভাগ এলাকায় ধান চাষ হয়। বর্তমানে ধানের পাশাপাশি ব্যাপকহারে আলু ও হাইব্রিড ভুট্টার চাষ হচ্ছে।এছাড়া উচু ও মাঝারী উচু জমিতে বিভিন্ন উচ্চ মুল্যের ফসল যেমন-ফুলকপি,বাঁধাকপি,বেগুন, টমেটো,আদা,হলুদ,মরিচ ইত্যাদি ফসলের চাষ হচ্ছে। এছাড়াও এই উপজেলায় কলার ব্যাপক চাষ হয়। উন্নত বীজ ব্যবহার,সেচ এলাকা সম্প্রসারণ  ও আধুনিক প্রযুক্তি ব্যবহারের ফলে ক্রমানয়ে ফসলের নিবিড়তার পাশাপাশি হেক্টর প্রতি উৎপাদন বাড়ছে। তবে বাজারজাতকরণ ব্যবস্থা ভাল না  থাকায় অনেক সময় কৃষকেরা ফসলের ন্যায্য মুল্য থেকে বঞ্চিত হয়। কৃষক/কৃষানীদের মাঝে বর্তমানে উদ্ভাবিত আধুনিক কৃষি প্রযুক্তি বিস্তারের লক্ষ্যে তাদেরকে প্রশিক্ষণ প্রদানসহ বিভিন্ন প্রযুক্তির প্রদর্শনী প্রদর্শন ও মাঠ পর্যায়ে প্রয়োজনীয় পরামর্শ প্রদান করা হচ্ছে। 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
এক নজরে কাহারোল উপজেলার তথ্যাবলী
 
       উপজেলা- কাহারোল জেলা- দিনাজপুর
ক্রঃ নং সাধারণ তথ্যাবলী সংখ্যা/ পরিমান % মন্তব্য
 
১ আয়তন (বর্গ কিঃ মিঃ) ২০৫.৫৫ ২০,৫৫৫ হেঃ
২ পৌরসভার সংখ্যা -
৩ ইউনিয়নের সংখ্যা ৬
৪ গ্রামের সংখ্যা ১৫৩
৫ বøকের সংখ্যা ১৮
৬ জন সংখ্যা মোট-১৫১৬৫৭
পুরুষ-৭৭২৫৩ ৫০.০২
মহিলা-৭৭১৭৯ ৪৯.৯৮
৭ মোট পরিবারের সংখ্যা ৩৮৫৯০
৮ মোট কৃষি পরিবারের সংখ্যা ৩০৯২০
              ক)ভূমিহীন চাষীর সংখ্যা ৬১২৫ ১৯.৮০
              খ)প্রান্তিক চাষীর সংখ্যা ৬২৫২ ২০.২২
              গ) ক্ষুদ্র চাষীর সংখ্যা ১৩৫৭২ ৪৩.৮৯
              ঘ) মাঝারী চাষীর সংখ্যা ৪৬২৩ ১৪.৯
              ঙ) বড় চাষীর সংখ্যা ৩৪৮ ১.২০
                           মোট চাষীর সংখ্যা= ৩০৯২০ ১০০
৯ জমির শ্রেণী বিভাগঃ হঃে শতকরা
ক)উচু জমির পরিমান ৫৪৪৭ ২৬.৪৯
         খ)মাঝারি উচু জমির পরিমান ১৪০৮১ ৬৮.৫১
         গ)মাঝারি নিচু জমির পরিমান ১০২৭ ৫
              ঘ)নিচু জমির পরিমান --
১০ জমির বিবরণঃ --
     ক)মোট জমির পরিমান (হেঃ) ২০৫৫৫ শতকরা
     খ)মোট আবাদী জমির পরিমান(হেঃ) ১৮২২৩ ৮৬.৭৯
     গ)মোট আবাদযোগ্য জমির পরিমান (হেঃ) ১৮২২৩ ৮৬.৭৯
     ঘ)মোট পতিত জমির পরিমান (হেঃ) ২৭১৫ ১৩.২১
     ঙ)মোট আবাদযোগ্য পতিত জমির পরিমাণ  
        (হেঃ) -- --
১১ জমির ফসলী ধরণঃ হঃে শতকরা
        ক)এক ফসলী জমির পরিমান (হেঃ) ২৫৫ ১.৪৩
        খ)দুই ফসলী জমির পরিমান (হেঃ) ৯৩৮৩ ৫০.৪৫
        গ)তিন ফসলী জমির পরিমান (হেঃ) ৮১০৫ ৪৫.৪৩
        ঘ)চার ফসলী জমির পরিমান (হেঃ) ৪৮০ ২.৬৯
                          নীট ফসলী জমি = ১৮২২৩ ১০০
১২ মোট ফসলী জমির পরিমান  (হেঃ) ৪৫২৫৬ -
১৩ শস্যের নিবিড়তা ২৪৮.৩৫% -
 
 
 
 
ক্রঃ নং সাধারণ তথ্যাবলী সংখ্যা/ পরিমান % মন্তব্য
 
১৪ মোট হাট/বাজারের সংখ্যা ২০টি
১৫ হিমাগারের সংখ্যা  ১ টি ধারন ক্ষমতা-১২০০০ মেঃ টন।
১৬ জৈব সার উৎপাদন ও বিপনন প্রতিষ্ঠান ১টি
১৭ ট্রেতে বিভিন্ন প্রকার সব্জির চারা উৎপাদন ও বিপনন প্রতিষ্ঠান ১টি
১৮ সার ও বীজ ডিলারের তথ্যঃ
            ক) বিসিআইসি সার ডিলার 
            খ) বিএডিসি সার ডিলার
            গ) খুচরা সার বিক্রেতা
        ঘ) বিএডিসি বীজ ডিলার
         ঙ) বীজ উৎপাদন প্রতিষ্ঠান
১০ জন
৯ জন
৫২ জন
২৫ জন
৩ টি
১৯ কীটনাশক ডিলার ঃ    
            ক) পাইকারী 
         খ) খুচরা
৬ জন   
১১৪ জন
২০ কৃষি যন্ত্রপাতির সংখ্যাঃ 
                     ক) পাওয়ার টিলার 
                      খ) ট্রাক্টর
৮২৪ টি
৮৪ টি
২১ সেচ যন্ত্রের সংখ্যা ঃ
          ক) গভীর নলকুপ
          খ) অগভীর নলকুপ  
             (বৈদ্যুতিক) 
          গ) অগভীর নলকুপ (ডিজেল)
১৭৯ টি
৩৮০ টি 
৫১০০ টি
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
উপজেলার ২০১৬-১৭ অর্থ বছরে খাদ্য উৎপাদন পরিস্থিতিঃ
ক্রমিক নং বিবরণ ২০১৬-১৭ অর্থ বছরের পরিস্থিতি
 
১ জনসংখ্যা ১,৫১,৬৫৭ জন
২ খাদ্য প্রয়োজন (জনপ্রতি দৈনিক চাহিদা ৪৫৩.৬০ গ্রাম হিসেবে) ২৫,১০৮ মেঃটন
৩ বীজ,গো খাদ্য ও অপচয় (খাদ্য চাহিদার ১১.৫৮% হিসাবে) ২,৯০৭ মেঃ টন
৪ মোট খাদ্য শস্য চাহিদা (২+৩) ২৮,০১৫ মেঃটন
৫ মোট খাদ্য শস্য উৎপাদন (চাল ও গম) ৮৩,১৭৮ মেঃটন
৬ উদ্বৃত্ত(+) / ঘাটতি(-) (+) ৫৫,১৬৩মেঃটন
 
 
বানিজ্যিক ফল বাগানের তথ্য: 
 
আম লিচু ফুল কলা পেঁপে আনারস অন্যান্য
বাগানের সংখ্যা (টি) ১০৫০ ৭৮০ ২১ ৩৫০ ৭ - ৩৫
গাছের সংখ্যা (টি) ১৫৬৫০০ ১৭৬৩০ ১৫৪৩৭ ৭৬২৫০০ ২৪৪০ - ১৮৫০০
জমির আয়তন ২৬৩ হেঃ ১৪৫ হেঃ ২ হেঃ ৩০৫ হেঃ ৪ হেঃ - ১৫ হেঃ
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
উপজেলার বিভিন্ন ফসল আবাদের লক্ষ্যমাত্রা ও অর্জন ঃ
 
ক্রঃ নং ফসলের নাম ২০১৬-১৭ ২০১৭-১৮ মন্তব্য
লক্ষ্যমাত্রা(হেঃ) অর্জিত(হেঃ) লক্ষ্যমাত্রা(হেঃ) অর্জিত(হেঃ)
 
১ বোরো ৫২৭৭ ৫৮২০ ৫৭২৬ ৫৭৭৫ রবি মৌসুম
২ গম ৪৯৫৬ ৫,১৫০ ৫৯৯১ ১৭৮৫
৩ আলু ১৯৬০ ২২১০ ২০৬৬ ২২১০
৪ শীতকালীন ভুট্টা ১০৫৮০ ৮৪৫০ ৮৪৫০ ৮৮৫০
৫ মিষ্টি আলু ১০ ৫ ৫ ১০
৬ শীতকালীন সবজি ৭২২ ৭২৫ ৮১৭ ৭২৫
৭ সরিষা ১২২১ ৮৭৫ ৯০৬ ৮৯৫
৮ মসুর ১০ ১২ ১২ ১২
৯ সয়াবিন ৩২ ২৭ -- --
১০ পেঁয়াজ ১৬৫ ১৬০ ১৬০ ১৭৫
১১ রসুন ১৫০ ১৭০ ১৭০ ১৬৫
১২ শীতকালীন মরিচ ১০৫ ১২০ ১২০ ৬০
১৩ ধনিয়া ১১ ৫ ৯ ৫
১৪       অন্যান্য ১৫ ১৫ ১৫ ১৫
১৫ আউশ ৩৫৪ ৩৮৫ ৩৪২ ৩৮৫ খরিপ-১ মৌসুম
১৬ পাট ৬৫৫ ৩৬০ ৬৫৫ ৩৯০
১৭ মুগ ২০ ১০ ২০ ১০
১৮ তিল ২ ৫ ২ ৫
১৯ গ্রীষ্মকালীন শাকসবজি ৩০৫ ৩১০ ২৭৫ ৩০৫
২০ ভুট্টা ১২৬২ ১৫৫০ ১২৫০ ৬৩০
২১ মরিচ ৪৬ ৮৪ ৩৫ ২৫
২২ অন্যান্য ৭৫ ৭০
২৩ রোপাআমন ১৪,২৪০ ১৪,৭৪৫ ১৪,৭৪৫ ১৪,৭৫০ খরিপ-২ মৌসুম
২৪ মাসকালাই ৪০ ২৫ -- --
২৫ কলা ৩০৫ ৩২০ ৩২০ ৮৫
২৬ শাকসবজি ২৫ ৩০ ৩০ ২০
২৭ অন্যান্য ১৫ ১০ ২০ ৫
 
 
 
 
 
 
 
                           
 
উপজেলার চলমান শস্য বিন্যাস
ক্রঃনং শস্যক্রম ( রবি মৌসুম থেকে শুরু) জমি হেক্টর শতকরা হার(%) মন্তব্য
১ বোরো - পতিত - রোপা আমন ৪৮৯০ ২৬.৮৫  
২ বোরো- পতিত- পতিত ২৫৫ ১.৪২
৩ ভুট্টা-  পতিত- রোপা আমন ৪৮৩৮ ২৬.৫৬
৪ সব্জি + ভুট্টা-পতিত-রোপা আমন ৪১০ ২.২৬
৫ গম-  পতিত -  রোপা আমন ২২১৮ ১২.২০
৬ আলু+ভুট্টা-  পতিত-  রোপা আমন ২২১০ ১২.১৪
৭ সরিষা + বোরো- পতিত- রোপা আমন ৬৭৫ ৩.৭২
৮   সরিষা + ভুট্টা- পতিত- রোপাআমন ২০০ ১.১১
৯ ভুট্টা-  পতিত-  পতিত ৮০২ ৪.৪১
১০ গম-  পাট-  রোপা আমন ৩০০ ১.৬৬
১১ গম-  ধৈঞ্চা-  রোপা আমন ৬০ ০.৩৪
১২ গম-্  রোপা আউশ-  রোপাআমন ৩০০ ১.৬৬
১৩ গম -  মুগ -  রোপা আমন ১০ ০.০৬
১৪ পেয়াজ-–  পতিত -  সব্জি ৬০ ০.৩৪
১৫ রসুন Ñপতিত- সব্জি ৫৫ ০.০৪
১৬ মরিচÑ  সব্জি-  পতিত ৭৫ ০.৪২
১৭ হলুদ Ñ মরিচ- পতিত ৬৫ ০.৩৭
১৮ মসুর +   ধনিয়া-   পতিত-   মাসকলাই ১০ ০.০৬
১৯ সব্জী-  সব্জি-  মাসকলাই ১০ ০.০৬
২০ আখ ৫০ ০.২৮
২১ আদা ৫ ০.০৪
২২ সব্জি+ কলা ৩০৫ ১.৬৯
২৩ অন্যান্য ৪২০ ২.৩১
মোট ১৮২২৩ হেক্টর ১০০%
 
 
 
 
 
কাহারোল উপজেলার কৃষির সমস্যা সমূহঃ
 
১। কৃষকদের উৎপাদিত কৃষি ফসলের ন্যায্য মূল্য অনেক সময় না পাওয়া।
 
২। মাঝে মাঝে বর্ষা মৌসুমে খরা দেখা দেওয়ায় উৎপাদন খরচ বৃদ্ধি পাওয়া।
 
৩। নদী নালা ও খাল বিল ভরে যাওয়ায় এবং দখল হওয়ায় ভারী বৃষ্টিপাত বা বন্যার পানিতে ফসল হানি হওয়া এবং জলাবদ্ধতা সৃষ্টি হওয়া।
 
৪। অধিকাংশ কৃষক প্রান্তিক ও ক্ষুদ্র হওয়ায় পুুঁজির অভাব এবং ব্যাংক ঋনের অপ্রতুলতা ।
 
৫। মাঠে সবসময় গ্রীনব্রীজ থাকায় দিন দিন  বিভিন্ন ফসলে রোগ বালাই এবং পোকামাকড়ের প্রাদুর্ভাব বৃদ্ধি পাওয়া।
 
৬। অফিসে অফিসারদের জন্য যানবাহন (মটর সাইকেল) না থাকা।
 
৭। অফিস ভবন  জরাজীর্ণ ও বসবাসের অনুপযোগী এবং সাম্প্রতিক বন্যায় কম্পিউটার ও আসবাবপত্রে ব্যাপক ক্ষয়- ক্ষতি হওয়া।
 
কাহারোল উপজেলায় কৃষির সম্ভাবনা সমূহঃ
 
১। দিনাজপুরস্থ  মৃত্তিকা গবেষণাগার কাহারোল উপজেলার সন্নিকটে হওয়ায় কৃষকগণ সহজেই মাটি পরীক্ষার
মাধ্যমে সুষম মাত্রায় সার প্রয়োগ এবং মাটির অ¤øত্ব হ্রাসে ডলোচুন প্রয়োগে মাটির স্বাস্থ্য রক্ষায় কার্যকরী পদক্ষেপ
গ্রহনের সুযোগ।
 
২। পূর্ণভবা নদীতে রাবার ড্যাম (প্রস্তাবিত) নির্মাণ করে সেচ সুবিধা প্রদানের মাধ্যমে কৃষকদের ফসল উৎপাদনে
সেচ খরচ সাশ্রয়ী  করা।
 
৩। উপজেলার মাটি ও পরিবেশ বিভিন্ন ধরণের ফল বিশেষ করে আম, লিচু  ও মাল্টা চাষের উপযোগী হওয়ায়
ব্যাপক এলাকা  ফল চাষের অন্তর্ভূক্ত করার মাধ্যমে কৃষকদেরকে লাভবান করা।
 
৪। উচু জমি সমূহে আগাম জাতের আলু,ফুলকপি,বাঁধাকপি সহ বিভিন্ন ধরণের শাকসব্জী চাষের আওতায় আনার
মাধ্যমে কৃষকদের আর্থ সামাজিক অবস্থার উন্নয়ন।
 
৫। উপজেলায় কলা চাষের সম্ভাবনা থাকায় তা প্রসারিত করা যা  রাজধানীতে সরাসরি প্রেরিত হয়(দশমাইল থেকে)।
 
৬। বিভিন্ন সরকারী ও বেসরকারী ব্যাংক কর্তৃক কৃষকদের মাঝে সল্প সুদে কৃষি ঋন প্রদানের ব্যবস্থা করলে প্রান্তিক ও ক্ষুদ্র চাষীদের তা যথাযথ ব্যবহারের মাধ্যমে কৃষির প্রভূত উন্নয়ন ঘটানো সম্ভব।
 
৭। ডাল,তেল,মসলা জাতীয় ও হাইব্রিড ভুট্টা চাষের জন্য অত্র উপজেলার মাটি উপযোগী হওয়ায় এখানে এসমস্ত  ফসল আবাদ বৃদ্ধির মাধ্যমে কৃষকদের আর্থসামাজিক অবস্থার উন্নয়ন করে তাদেরকে আত্মনির্ভরশীল করে তোলা  সম্ভব।
 
 
 
 
 

ছবি


সংযুক্তি


সংযুক্তি (একাধিক)



Share with :

Facebook Twitter